রাবিতে তিন দিনব্যাপী আলোকচিত্র প্রদর্শনী ‘শ্রদ্ধা’ শুরু

15

স্টাফ রিপোর্টার : জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্যের প্রতি বিদেশি নাগরিকদের সম্মান প্রদর্শনের কিছু ছবি নিয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে আলোকচিত্র প্রদর্শনী ‘শ্রদ্ধা’ শুরু হয়েছে। শনিবার দুপুরে রাবির শহীদ মিনার প্রাঙ্গনে ফিতা কেটে তিন দিনব্যাপী এই আলোকচিত্র প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন। আলোকচিত্র শিল্পী ফোজিত শেখ বাবু এই প্রদর্শনীর আয়োজন করেছেন। আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত এই আলোকচিত্র প্রদর্শনী চলবে। দেশে-বিদেশে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের প্রতি বিদেশি নাগরিকদের সম্মান প্রদর্শনের ১৬টি ছবি প্রদর্শনীতে রাখা হয়েছে।

এ উপলক্ষে রাবির ড. এম ওয়াজেদ মিয়া বিজ্ঞান ভবনের প্রকৌশল অনুষদ গ্যালারীতে এক আলোচনা সভায় আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও রাসিক মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, আমরা গর্বিত জাতি। যে জাতি রক্ত দিয়ে দেশ স্বাধীন করেছে। এই দেশ স্বাধীন করার যে অহংকার, সেই অহংকার আমরা সবচেয়ে বেশি করতে পারি। কারণ আমাদেরকে বলা হতো, আমরা যোদ্ধা জাতি না। পাকিস্তানীরা বলতো, ‘বাঙালি মাছ খায়, বাঙালি ভীতু জাতি, বাঙালি ভয় পায়।’ সেই ভীরু বাঙালিকে হাতে অস্ত্র তুলে পাকিস্তানী বাহিনীর প্রশিক্ষিত সৈন্যদের হারিয়ে দিতে যিনি বাঙালির মধ্যে প্রাণের সঞ্চার করেছেন, তিনি হচ্ছেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। বঙ্গবন্ধুর কথা যতই বলবো, ততই আমরা নিজেরা বেশি সমৃদ্ধ হবো।

মেয়র আরো বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নানাভাবে শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করা হয়। আজকে পৃথিবীর প্রায় সব দেশেই জাতির পিতার বিভিন্ন কর্মকাণ্ড নিয়ে বিভিন্ন বই ও আলোকচিত্র প্রদর্শনী ইত্যাদি বিভিন্ন সময় করা হয়। বিশেষ করে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী যেটি আমরা পালন করলাম, করোনার কারণে বারে বারে বাধাগ্রস্ত হয়েও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সুদক্ষ তত্ত্বাবধায়নে সেটি চমৎকারভাবে সারাবিশ্বে পালিত হয়েছে। এই সময়ে বঙ্গবন্ধুর কর্মময় জীবন নিয়ে অনেক লেখকের বই প্রকাশিত হয়েছে। এসব বই আমাদের সকলের পড়া উচিত।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. গোলাম সাব্বির সাত্তারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক ছিলেন রাবির আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের সভাপতি ড. সৈয়দ আব্দুল্লাহ আল মামুন চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য দেন স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শব্দ সৈনিক বীর মুক্তিযোদ্ধা ড. মনোরঞ্জল ঘোষাল ও রাবির উপ-উপাচার্য ড. মোঃ সুলতান-উল ইসলাম। অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, রাবি ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

SHARE