আরএমপির কার্যক্রম পরিদর্শন করলেন যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত

13
পুলিশ কমিশনার রাষ্ট্রদূতকে আরএমপির পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা ক্রেস্ট প্রদান করেন।

স্টাফ রির্পোটার : বাংলাদেশে নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার হাস রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের কার্যক্রম পরিদর্শন করেছেন। রোববার (২৪ জুলাই) বেলা সাড়ে ১১টায় যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত আরএমপি সদর দপ্তরে পৌঁছান।
এরপর রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মো. আবু কালাম সিদ্দিক রাষ্ট্রদূতকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান।

এরপর তিনি রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ সদর দপ্তর ও শাহ মখদুম থানা কম্পাউন্ডে অবস্থিত ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার, সাইবার ক্রাইম ইউনিট, অপারেশন কন্ট্রোল অ্যান্ড মনিটরিং সেন্টার ও সিআরটির কার্যক্রম পরিদর্শন করেন।

প্রথমেই পুলিশ কমিশনারকে সঙ্গে নিয়ে রাষ্ট্রদূত ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার পরিদর্শন করেন। এ সময় রাষ্ট্রদূত পিটার হাস ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারে কর্মরত নারী পুলিশ সদস্যদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারের সার্বিক কার্যক্রম তিনি সন্তোষ প্রকাশ করেন।

যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূতের আগমন উপলক্ষে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ সদর দপ্তর কনফারেন্স রুমে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিকের সভাপতিত্বে সংক্ষিপ্ত পরিচিতি সভা হয়। সভা শেষে আরএমপির বিভিন্ন কাযক্রমের ওপর ডকুমেন্টারি প্রদর্শন করা হয়। ডকুমেন্টারিতে সাইবার ক্রাইম ইউনিট, হ্যালো আরএমপি অ্যাপ, অপারেশন কন্ট্রোল অ্যান্ড মনিটরিং সেন্টার, কিশোর গ্যাংয়ের ডিজিটাল ডাটাবেজ ও সিআরটিসহ আরএমপির বিভিন্ন কার্যক্রম তার সামনে তুলে ধরা হয়।

পরে পুলিশ কমিশনার রাষ্ট্রদূতকে আরএমপির পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা ক্রেস্ট দেন।

যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার হাস আরএমপি সদর দপ্তর ও ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার পরিদর্শন শেষে দুপুর ১টায় আরএমপি পুলিশ লাইন্সে আরএমপির ক্রাইসিস রেসপন্স টিম (সিআরটি) এবং বোম ডিস্পোজাল টিমের বিভিন্ন কার্যক্রম ও উপকরণ পরিদর্শন করেন। পরে দুপুর দেড়টায় তিনি আরএমপির সাইবার ক্রাইম ইউনিট ও অপারেশন কন্ট্রোল অ্যান্ড মনিটরিং সেন্টার পরিদর্শন করেন। তিনি এ ইউনিটের সদস্যদের ‘ওহাবংঃরমধঃরহম ঃযব উধৎশ ডবন’ ট্রেনিংয়ের সনদপত্র বিতরণ করেন।

জঙ্গিবাদ দমনসহ সাহসিকতাপূর্ণ অভিযানের জন্য রাজশাহী মহানগর পুলিশ (আরএমপি) গঠন করেছে ক্রাইসিস রেসপন্স টিম (সিআরটি)। বিশেষ টিম সোয়াটের আদলে ৩৩ সদস্য নিয়ে এ টিম গড়ে তোলা হয়েছে। যেকোনো সংকটময় পরিস্থিতিতে সাহসিকতা নিয়ে অভিযান পরিচালনা ছাড়াও জঙ্গিবাদ দমন ও সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারে অভিযান পরিচালনার জন্য মাঠে কাজ করে আসছে সিআরটি। ইতোমধ্যে আরএমপি সিআরটি আমেরিকান দূতাবাসের তত্ত্বাবধানে জর্ডান থেকে উন্নত প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের ডিপার্টমেন্ট অব স্টেট অ্যান্টি-টেররিজম অ্যাসিস্ট্যান্স (এটিএ), ইউএস অ্যাম্বাসি, ঢাকার তত্ত্বাবধানে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিট ও আরএমপির সিআরটি সদস্যদের দক্ষ করতে নিয়মিত প্রশিক্ষণ দিয়ে আসছে।

SHARE