রাজশাহীতে সিআরপির ১৫ বিঘা জমির কাগজপত্র হস্তান্তর করলেন মেয়র লিটন

33

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি : পক্ষাঘাতগ্রস্তদের পুনর্বাসন কেন্দ্র সিআরপির আদলে রাজশাহীতে একটি কেন্দ্র গড়ে তোলার জন্য ১৫ বিঘা জমি দান করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ও তাঁর পরিবার। সেই দানকৃত জমির কাগজপত্র আজ মঙ্গলবার দুপুরে নগর ভবনে মেয়র দপ্তরকক্ষে সিআরপি কর্মকর্তাদের নিকট হস্তান্তর করেন মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন।

কাটাখালি পৌরসভার কাপাসিয়ায় ১৫ বিঘা জমিটির উপর গড়ে উঠবে সিআরপি রাজশাহী শহীদ কামারুজ্জামান ও জাহানারা জামান সেন্টার। এখানে প্রতি বছর ৫ হাজার মানুষ স্ট্রোকের চিকিৎসা ও অন্যান্য শারীরিক প্রতিবন্ধকতার চিকিৎসা পাবেন এখানে। এছাড়া স্পাইনাল কর্ড ইনজুরি, কৃত্রিম অঙ্গ প্রত্যঙ্গ তৈরি, ফিজিওথেরাপিস্ট, অকুপেশনাল থেরাপিস্ট, স্পিচ অ্যান্ড ল্যাঙ্গুয়েজ থেরাপিস্ট সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয়ে শিক্ষা নিতে পারবেন শিক্ষার্থীরা।

এ ব্যাপারে আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও রাসিক মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, দীর্ঘ ১৫ বছর আগ থেকে আমি ও আমার স্ত্রী শাহীন আকতার রেনী পক্ষাঘাতগ্রস্ত, পঙ্গু ও প্রতিবন্ধীদের কল্যানে কাজ করছি। এ সংক্রান্ত কয়েকটি সংগঠনের সাথে জড়িত থেকেও কাজ করেছি। তখন থেকে মনে হতো, তাদের জন্য স্থায়ীভাবে যদি কিছু করতে পারতাম। সেই চিন্তা থেকে পক্ষাঘাতগ্রস্তদের পুনর্বাসন কেন্দ্র গড়ে তুলতে ১৫ বিঘা জমি সিআরপিকে প্রদান করেছি।

জমির কাগজপত্র হস্তান্তরের সময় উপস্থিত ছিলেন সিআরপির চীফ অব এডমিন শাহ মোঃ আতাউর রহমান, বাংলাদেশ হেলথ প্রফেশন ইনস্টিটিউটের অধ্যক্ষ ডা. ওমর আলী সরকার, সিআরপি রাজশাহীর কেন্দ্র ব্যবস্থাপক সোমা বেগম সহ অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ ও বাংলাদেশ দলিল লেখক সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বিভাগীয় কমিটির আহ্বায়ক মোঃ মহিদুল হক।

উল্লেখ্য, আর্তমানবতার সেবায় রাজশাহীতে পক্ষাঘাতগ্রস্তদের পুনর্বাসন কেন্দ্র গড়ে তুলতে ১৫ বিঘা জমি সিআরপিকে দান করেন জাতীয় চার নেতার অন্যতম শহীদ এএইচএম কামারুজ্জামানের সুযোগ্য সন্তান রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ও তাঁর পরিবার। গত ৬ ফেব্রুয়ারি সিআরপি প্রতিষ্ঠাতা ভ্যালেরি অ্যান টেইলর এর সঙ্গে চুক্তি ও জমিদান কার্যক্রম সম্পন্ন করেন রাসিক মেয়র লিটন। চুক্তি শেষে সেদিন সিআরপি‘র প্রতিষ্ঠাতা ভ্যালেরি অ্যান টেইলর বলেছিলেন, আমি অত্যন্ত আনন্দিত। আমার আনন্দ প্রকাশের ভাষা নেই। শহরের মধ্যে সড়কের পাশে অনেক গুরুত্বপূর্ণ ১৫ বিঘার একটি জমি পক্ষাঘাতগ্রস্ত মানুষের কল্যাণে সিআরপিকে দান করলেন মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ও তার পরিবার। আমরা রাজশাহীতে সাভারের পক্ষাঘাতগ্রস্তদের পুনর্বাসন কেন্দ্র-সিআরপি এর আদলে আরেকটি পক্ষাঘাতগ্রস্তদের পুনর্বাসন কেন্দ্র গড়ে তুলবো। সেখানে প্রতি বছর এ অঞ্চলের হাজার হাজার মানুষ চিকিৎসা সেবা পাবেন।

SHARE