আত্রাই নদীতে গোসলে নেমে নিখোঁজ স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ ১৮ ঘণ্টা পর উদ্ধার

61

নওগাঁ প্রতিনিধি : নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার আত্রাই নদীতে গোসল করতে নেমে নিখোঁজের প্রায় ১৮ ঘণ্টা পর স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল। সোমবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সকালে আত্রাই নদীর রামচন্দ্রপুর ঘাটের ৫০০ গজ দূরে এক ঘণ্টার ব্যবধানে তাদের মরদেহ দুটি নদীর পানিতে ভেসে উঠে।

এর আগে রোববার বিকেলে মহাদেবপুর উপজেলার খাজুর ইউনিয়নের রামচন্দ্রপুর এলাকায় আত্রাই নদীতে গোসল করতে নেমে নিখোঁজ হন তারা। মৃতরা হলেন-দিনাজপুর জেলার বীরগঞ্জ উপজেলা সদরের পুরাতন জেলখানা এলাকার পারভেজ হোসেন (২২) এবং তার স্ত্রী মিনি আক্তার সোমা (১৮)।
উপজেলার রামচন্দ্র পুর গ্রামে মামাতো বোনোর বাড়িতে বেড়াতে এসে আত্রাই নদীতে গোসল করতে নেমে নিখোঁজ স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে স্বামী পারভেজ হোসেনের মরদেহ সোমবার সকালে আত্রাই নদীর রামচন্দ্রপুর নদীর ঘাট এলাকায় ভেসে উঠে। এর ঠিক এক ঘণ্টা পর একই স্থানে অন্তঃসত্তা স্ত্রী মিনি আক্তার সোমার লাশ ভেসে উঠে।

সোমবার সকালে এলাকাবাসী নদীতে লাশ ভেসে থাকতে দেখে মহাদেবপুর থানায় খবর দেয়। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা বর্তমানে ঘটনাস্থলে অবস্থান করে লাশ দুটি উদ্ধার করে।

উল্লেখ্য, গত রোববার বিকেলে নওগাঁর মহাদেবপুরে আত্রাই নদীতে গোসল করতে নেমে রামচন্দ্রপুর আত্রাই নদীর ঘাট এলাকায় স্বামী- স্ত্রী নিখোঁজ হয়। তাদের বাড়ী দিনাজপুর জেলার বীরগঞ্জ উপজেলা সদরের পুরাতন জেলখানা এলাকায়। গত শনিবার মহাদেবপুর উপজেলার রামচন্দ্রপুর গ্রামে মামাতো বোনের বাড়িতে বেড়াতে আসে ওই দম্পতি। গত রোববার বিকেলে নদীর পানিতে গোসল করতে নামলে তারা দুজনেই নিখোঁজ হোন।

রোববার রাত ৮ টা পর্যন্ত ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল নদীর বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুজি করে নিখোঁজ দম্পতির কোন হদিস করতে পারেনি। রাত ৮ টায় গতকালের মতো উদ্ধার অভিযান স্থগিত করা হয়।

আজ সকাল থেকে আবারো ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা লাশ উদ্ধারের প্রস্তুতি নেওয়ার সময় আত্রাই নদীর রামচন্দ্রপুর ঘাটের ৫০০ গজ দুরে তাদের মরদেহ ভেসে উঠে। দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলা থেকে নওগাঁর মহাদেবপুরে মামাতো বোনের বাড়ীতে বেড়াতে এসে এই মর্মান্তিক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছাড়া নেমে এসেছে।

SHARE