জুলাইয়ে টোকিও অলিম্পিক হোক চায় না জাপানিরা

25

স্পোর্টস ডেস্ক : ২০১৩ সালে অলিম্পিকের আয়োজক হিসেবে টোকিও নির্বাচিত হওয়ার পর উল্লাসে ফেটে পড়ে পুরো জাপান
২০১৩ সালে ভোটভুটিতে জিতে জাপান পায় ২০২০ অলিম্পিক আয়োজনের দায়িত্ব। ১৯৬৪ সালের পর দ্বিতীয়বার বিশ্বের সর্ববৃহৎ ক্রীড়াযজ্ঞের আয়োজক হতে পেরে জাপানিরা মেতেছিল আনন্দ-উল্লাসে। সূর্যোদয়ের দেশটির মানুষের উচ্ছ্বাস হারিয়ে গেছে করোনা মহামারির আতঙ্কে। ১০০ দিন পর টোকিও মেতে উঠুক ক্রীড়াবিদদের পদচারণায় তা চায় না জাপানিরা। সম্প্রতি এক জরিপে উঠে এসেছে এমন তথ্য। সেই জরিপটি চালিয়েছে জাপানের শীর্ষ নিউজ এজেন্সি ‘কায়েদো’। তারা বলছে, জরিপে অংশ নেয়া ৭০ শতাংশ জাপানি মনে করে অলিম্পিক গেমসের ৩২তম আসরটি বাতিল অথবা পিছিয়ে দেয়া হোক।

টোকিও অলিম্পিক করোনা মহামারির কারণে একবার পিছিয়েছে। গত বছরের ২৪শে জুলাই থেকে ৯ই আগস্ট পর্যন্ত হওয়ার কথা ছিল ৩৩টি ভিন্ন খেলাধুলার ক্রীড়া মহোৎসব।
৩৩৯টি ইভেন্টের আসরটি পিছিয়ে নতুন তারিখ নির্ধারিত হয় চলতি বছরের ২৩শে জুলাই থেকে ৮ই আগস্ট পর্যন্ত। জরিপে অংশ নেয়া ৩৯.২ শতাংশ জাপানি মত দিয়েছে টোকিও অলিম্পিক বাতিলের। ৩২.৮ শতাংশ জানিয়েছে আবারো পিছিয়ে দেয়া হোক ‘দ্য গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’। পুননির্ধারিত সময়ে অলিম্পিক আয়োজনের পক্ষে ভোট দিয়েছে মাত্র ২৪.৫ শতাংশ জাপানি।

টোকিওতে অলিম্পিক দেখতে অনুমতি মিলবে না বিদেশি দর্শকদের। এরই মধ্যে প্রথম দেশ হিসেবে টোকিও অলিম্পিক থেকে নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

SHARE