বাগমারায় একব্যক্তিকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা, আটক ১

53

স্টাফ রিপোর্টার,বাগমারা : রাজশাহীর বাগমারায় পূর্বশত্রুতার জের ধরে আনিসার রহমান (৪২) নামের এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে জখমরে অভিযোগ পাওয়া গেছে। আশংকারজনক অবস্থায় ওই ব্যক্তিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে শাকিল আহম্মেদ (১৮) নামের এক তরুণকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় লোকজন সূত্রে জানা যায়, উপজেলার গোয়ালকান্দি ইউনিয়নের সমষপাড়া গ্রামের আনিসুর রহমান গতকাল শুক্রবার দিবাগত রাতে একই গ্রামের আবদুর রহমানের বাড়ির সামনে আসলে দুর্বৃত্তরা আনিসার রহমানকে, এসময় আত্নরক্ষার জন্য চিৎকার শুরু করেন। তাঁর চিৎকারে আশপাশের বাড়ির লোকজনের ঘুম ভেঙে যায়। কয়েকজন প্রতিবেশি দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। এসময় দুর্বৃত্তরা আনিসার রহমানকে রক্তাক্ত অবস্থায় ফেলে পালিয়ে যায়। পরে লোকজন রক্তাক্ত অবস্থায় আনিসারকে উদ্ধার করে স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে তাঁর অবস্থার অবনতি হলে অচেতন অবস্থায় রাতেই রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

এসময় থানায় খবর দেওয়া হলে স্থানীয় তাহেরপুর পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে হামলার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে শাকিল আহম্মেদ নামের একজন তরুণকে আটক করে। এই বিষয়ে আহত ব্যক্তির মা ফাতেমা বেগম বাদী হয়ে ছেলেকে হত্যা প্রচেষ্টার অভিযোগে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় আটক শাকিলকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আহত আনিসারের ছোটভাই আশরাফুল ইসলাম দুপুরে মুঠোফোনে বলেন, তাঁর ভাই এখনো চেতনা ফিরে পাননি। পূর্ব শক্রুতার জের ধরে হত্যার উদ্দেশ্যে তাঁর ভাইয়ের ওপর হামলা চালানো হয়েছে। শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারালো অস্ত্রের আঘাত ও ক্ষত হয়েছে। পায়ের একটি রগও কেটে গেছে।

তবে পলাতক থাকায় ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের সঙ্গে কথা বলা সম্ভব হয়নি।

তাহেরপুর তদন্তকেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক আবদুর রাজ্জাক বলেন, পুলিশ রাতেই শাকিল নামের একজনকে গ্রেপ্তার করেছে। মামলার অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

SHARE