মসজিদ মিশন একাডেমীতে আর দুর্নীতি করার সুযোগ নেই: বাদশা

19

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহীর মসজিদ মিশন একাডেমীতে বিপুল পরিমাণ অর্থ লুটপাটের চিত্র উঠে এসেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তদন্তে। সেই প্রসঙ্গ তুলে ধরে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সিনিয়র সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা বলেছেন, প্রতিষ্ঠানটিতে আর দুর্র্নীতি করার কোন সুযোগ নেই।

রোববার মসজিদ মিশন স্কুল অ্যান্ড কলেজ একাডেমীর রাজশাহী নগরীর বড়কুঠি শাখায় শিক্ষার্থীদের জন্য ডিজিটাল ব্যাংকিং কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে তিনি প্রধান অতিথি হিসেবে ব্যাংকিং কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। ব্যাংকিং কার্যক্রমের সহযোগিতা করছে আল-আরাফাহ ইসলামি ব্যাংক। এখন থেকে প্রতিষ্ঠানটির সবকিছুর হিসাব ব্যাংকের মাধ্যমে পরিচালিত হবে।

উদ্বোধনের পর রাজশাহী সদর আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের জন্য ডিজিটাল ব্যাংকিং সেবা গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ। এই সেবায় স্বচ্ছতা জবাবদিহিতা থাকে। কোন দুর্নীতি করার সুযোগ থাকে না। তিনি বলেন, শিক্ষা মন্ত্রণালয় এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের উপর নিরীক্ষা পরিচালনা করে। সেসময় প্রতিবেদন দেয়া হয়েছিল- এখানে ব্যাপক দুর্নীতি হয়েছে। এখন থেকে এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আর কোন দুর্নীতি করার সুযোগ নেই। এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান চলবে সৎ ও সঠিক পথে।

বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্র্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, রাজশাহী শহরের ৯৯ শতাংশ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে এমপিওভুক্ত করা হয়েছে। বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে উন্নয়ন অব্যাহত আছে। রাজশাহীতে বেশি কিছু শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বহুতল ভবন করা হয়েছে। মসজিদ মিশন একাডেমীও বাদ যাবে না। এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের জন্য নিয়মের মধ্যে যা করার দরকার সবই করা হবে। তিনি বলেন, সরকার এখন কারিগরি ও প্রযুক্তিগত শিক্ষায় গুরুত্ব দিচ্ছে। কারিগরি ও প্রযুক্তিগত শিক্ষা কর্মজীবনে খুব গুরুত্বপুর্ণ। এই শিক্ষা নিলে কোন বিফলে যাবে না। সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি কারিগরি ও প্রযুক্তিগত শিক্ষায় শিক্ষার্থীদের মনোযোগ দিতে হবে।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন মসজিদ মিশন একাডেমীর অধ্যক্ষ নুরুজ্জামান খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন আল-আরাফাহ ব্যাংকের জৈষ্ঠ্য সহ-সভাপতি নাজমুল হুদা, মসজিদ মিশন একাডেমী পরিচালনা কমিটির সভাপতি খন্দকার হাবিবুর রহমান।

SHARE