ডিসির উদ্যোগে রাজশাহীর কোর্ট চত্বর তামাক পণ্যমুক্ত দোকান

75

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীর কোর্ট চত্বরের পুরো এলাকাজুড়ে যত্রতত্র ছিল বিভিন্ন তামাকজাতপণ্যের হরেক রকমের দোকান। হাতের নাগাল থেকে কোর্ট চত্বর ধূমপায়ীরা বিড়ি-সিগারেটসহ বিভিন্ন তামাকজাত দ্রব্য ক্রয় করে ওই জনবহুল এলাকাটিতেই দেদারছে ধূমপান করতো। ফলে ধূমপানের ধোঁয়ার কোর্ট চত্বরের বাতাস হয়ে উঠেছিল বিষাক্ত। এতে করে জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে কোর্ট চত্বরে আসা অধূমপায়ীরা প্রতিনিয়ত চরম স্বাস্থঝুঁকির মধ্যে ছিল। তবে বর্তমান জেলা প্রশাসক (ডিসি) হামিদুল হক দায়িত্ব নেয়ার পর কোর্ট চত্বরে বসা তামাকপণ্যের এসব অবৈধ পসরা অপসারণ করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। এমন মহতী উদ্যোগের পর থেকে ওই এলাকায় কমে গেছে প্রকাশ্যে ধূমপানের দৃশ্যও।  বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে সরেজমিনে কোর্ট চত্বর এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, চলতি বছরের শুরুতেই উন্নয়ন ও মানবাধিকার সংস্থা ‘এ্যাসোসিয়েশন ফর কম্যুনিটি ডেভেলমপন্টে-এসিডি’র উদ্যোগে নগরীতে তামাকজাতপণ্যের দোকানের ওপর একটি বেসলাইন জরিপ পরিচালনা করা হয়। সেই জরিপ মোতাবেক, কোর্ট চত্বর ও জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের আশেপাশে থাকা অন্তত ১৫টি তামাকজাতপণ্যের দোকানের একটিও সেখানে নেই। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে গত ১১ জুন এক আদেশে হামিদুল হক রাজশাহী জেলা প্রশাসকের দায়িত্ব নেয়ার কিছুদিনের মধ্যেই সেখানে তামাকপণ্যের দোকানসহ অবৈধভাবে চায়ের দোকানগুলোও সরিয়ে দেয়া হয়েছে। সবগুলো দোকান অপসারণ করায় পুরো এলাকায় বিরাজ করছে স্বাস্থসম্মত পরিবেশ।

SHARE