নিশাঙ্কা-আসালাঙ্কার ফিফটিতে ঘুরে দাঁড়াল শ্রীলঙ্কা

অনলাইন ডেস্ক : সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে বাংলাদেশের দেওয়া ২৮৭ রানের জবাবে ব্যাট করছে শ্রীলঙ্কা। যদিও তাদের শুরুটা সুবিধাজনক হয়নি। টাইগার পেসার শরীফুল ইসলামের জোড়া এবং তাসকিন আহমেদের এক শিকারে তারা ৪৩ রানে তিন উইকেট হারিয়ে বসেছিল। তবে সেখান থেকে শতরানের চতুর্থ উইকেট জুটিতে ঘুরে দাঁড়িয়েছে সফরকারীরা। ক্রিজে অপরাজিত ব্যাটসম্যান পাথুম নিশাঙ্কা ও চারিথ আসালাঙ্কা দুজনেই ফিফটি পূর্ণ করেছেন।

দুজনের শতরান পেরোনো জুটি মূলত চোখ রাঙাচ্ছে বাংলাদেশকে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত লঙ্কানদের সংগ্রহ ২৮ ওভারে ৩ উইকেটে ১৬৫ রান। ওপেনার নিশাঙ্কা ৮৬ বলে অপরাজিত আছেন ৭৩ রানে। অপর প্রান্তে থাকা আসালাঙ্কা ৬৪ বলে ৬৬ রানে ব্যাট করছেন।

আরও পড়ুনঃ   ৬ বলে ৬ ছক্কায় ইতিহাসের পাতায় নেপালি ক্রিকেটার

এর আগে ২২তম ওভারে স্পিনার তাইজুল ইসলামের বলে স্লগ সুইপে ছয় হাঁকিয়ে ব্যক্তিগত ফিফটি পূর্ণ করেন আসালাঙ্কা। বিনিময়ে তিনি মোকাবিলা করেছেন ৫০ বল। ব্যক্তিগত অর্ধশতক পূরণের আগে তিনি তিনটি করে চার ও ছয় হাঁকিয়েছেন। আসালাঙ্কার আগে লঙ্কানদের একপ্রান্ত আগলে রাখা নিশাঙ্কাও ফিফটি পূর্ণ করেন ৫৮ বলে। অর্ধশতক পূরণের পথে তিনি ৬টি চার ও একটি ছক্কার বাউন্ডারি খেলেন।

লঙ্কানদের প্রথম তিন উইকেট দ্রুত পড়ে গেলেও রানের গতি ধরে রেখেছেন নিশাঙ্কা ও আসালাঙ্কা। পাশাপাশি প্রয়োজনীয় রানরেটও রেখেছেন নাগালের মধ্যে। এর আগে শরীফুলের করা ইনিংসের প্রথম ওভারের দ্বিতীয় বলেই প্রথম স্লিপে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান ওপেনার আভিস্কা ফার্নান্দো (০)। শরীফুলের বলটা ডিফেন্ড করতে গিয়েছিলেন, তবে ব্যাটের বাইরের কানায় লেগে বল চলে যায় সৌম্যর হাতে। মাঝে তানজিম সাকিবকে এনেছিলেন অধিনায়ক শান্ত। তার ওপরেও চড়াও হয়েছেন লঙ্কান ব্যাটাররা।

আরও পড়ুনঃ   রাজস্থানের ছক্কায় আলো জ্বলবে ছয় বাড়িতে

বাংলাদেশকে এই অবস্থায় পথ দেখালেন তাসকিন। তার বাইরে বেরিয়ে যাওয়া বল আলতোভাবে স্পর্শ করেছিল কুশল মেন্ডিসের (১৬) ব্যাট। উইকেটের পেছনে ক্যাচ নিয়েছেন মুশফিকুর রহিম। পরের ওভারেই সাদিরা সামারাবিক্রমাকে (১) ফেরান শরীফুল। অফ-স্ট্যাম্পের বাইরের বলে ড্রাইভ করতে গিয়ে ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে ক্যাচ তুলেছেন তিনি।