রাসিকের স্কিল ডেভেলপমেন্ট মডেল সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে চান পলক

  • আপডেট সময় : ০১:২৪:০২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২৪ ২ বার পড়া হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার: প্রশিক্ষণের মাধ্যমে তথ্য-প্রযুক্তিতে তরুণদের কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা করেছে রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক)। ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক রোববার বিকালে এই ইনস্টিটিউট পরিদর্শন করে বলেছেন, কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এ ধরনের ইনস্টিটিউট খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। রাসিকের এই মডেল তিনি সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে চান।
বিকেলে প্রতিমন্ত্রী পলক নগর ভবনের ১০ তলায় স্থাপিত ইনস্টিটিউটের কার্যক্রম ও ল্যাব পরিদর্শন করেন। এ সময় তার সঙ্গে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন উপস্থিত ছিলেন। পরে নগর ভবনের সিটি হলরুমে সিটি মেয়র খায়রুজ্জামান লিটনের সভাপতিত্বে কাউন্সিলর ও কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।
তিনি বলেন, আরসিসি এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট পরিদর্শন করেছি। এটি অনেক ভালো একটি উদ্যোগ। এই মডেলটি সারা বাংলাদেশে ছড়িয়ে দেওয়া হবে। স্মার্ট কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এটি উল্লেখযোগ্য ভুমিকা পালন করবে। তিনি বলেন, মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ভাই রাজশাহীকে সারাদেশের মধ্যে সেরা ও মডেল শহরে পরিণত করেছেন। সারা বাংলাদেশ এখন তাঁকে অনুসরণ করছে। এটি রাজশাহীর জন্য বড় পাওয়া।
সভায় মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, ফ্রিল্যান্সিং বাংলাদেশে ভবিষ্যতে বিদেশী মুদ্রা আয়ের বড় খাত হবে। তাই কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। আগামীতে নগরীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র গড়ে তোলা হবে। এখানে তরুণ-তরুণীরা প্রশিক্ষণ নিয়ে ফ্রিল্যান্সিং করে অর্থ আয় করতে পারবে।
অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলককে শুভেচ্ছা স্মারক প্রদান করেন রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন রাসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন। মঞ্চে ছিলেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ নিযাম উল আযিম, প্যানেল মেয়র-২ আব্দুল মমিন, প্যানেল মেয়র-৩ তাহেরা খাতুম মিলি প্রমুখ। এ সময় ইনস্টিটিউটের কো-অর্ডিনেটর প্রফেসর মুহা. হবিবুর রহমান, কবি আরিফুল হক কুমার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে গত ১ জানুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে আরসিসি এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউটে যাত্রা শুরু হয়। এই ইনস্টিটিউটে চারটি কোর্সে শিক্ষার্থীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। কোর্সসমূহ হচ্ছে, ডিজিটাল মার্কেটিং ফর ফ্রিল্যান্সিং, গ্রাফিক্স ডিজাইন ফর ফ্রিল্যান্সিং, ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট ফর ফ্রিল্যান্সিং, ভিডিও এডিটিং ফর ফ্রিল্যান্সিং। চার মাসব্যাপী প্রশিক্ষণে প্রথম ব্যাচে চারটি কোর্সে ২৪০ জন শিক্ষার্থী প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

রাসিকের স্কিল ডেভেলপমেন্ট মডেল সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে চান পলক

আপডেট সময় : ০১:২৪:০২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২৪

স্টাফ রিপোর্টার: প্রশিক্ষণের মাধ্যমে তথ্য-প্রযুক্তিতে তরুণদের কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা করেছে রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক)। ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক রোববার বিকালে এই ইনস্টিটিউট পরিদর্শন করে বলেছেন, কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এ ধরনের ইনস্টিটিউট খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। রাসিকের এই মডেল তিনি সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে চান।
বিকেলে প্রতিমন্ত্রী পলক নগর ভবনের ১০ তলায় স্থাপিত ইনস্টিটিউটের কার্যক্রম ও ল্যাব পরিদর্শন করেন। এ সময় তার সঙ্গে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন উপস্থিত ছিলেন। পরে নগর ভবনের সিটি হলরুমে সিটি মেয়র খায়রুজ্জামান লিটনের সভাপতিত্বে কাউন্সিলর ও কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।
তিনি বলেন, আরসিসি এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট পরিদর্শন করেছি। এটি অনেক ভালো একটি উদ্যোগ। এই মডেলটি সারা বাংলাদেশে ছড়িয়ে দেওয়া হবে। স্মার্ট কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এটি উল্লেখযোগ্য ভুমিকা পালন করবে। তিনি বলেন, মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ভাই রাজশাহীকে সারাদেশের মধ্যে সেরা ও মডেল শহরে পরিণত করেছেন। সারা বাংলাদেশ এখন তাঁকে অনুসরণ করছে। এটি রাজশাহীর জন্য বড় পাওয়া।
সভায় মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, ফ্রিল্যান্সিং বাংলাদেশে ভবিষ্যতে বিদেশী মুদ্রা আয়ের বড় খাত হবে। তাই কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। আগামীতে নগরীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র গড়ে তোলা হবে। এখানে তরুণ-তরুণীরা প্রশিক্ষণ নিয়ে ফ্রিল্যান্সিং করে অর্থ আয় করতে পারবে।
অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলককে শুভেচ্ছা স্মারক প্রদান করেন রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন রাসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন। মঞ্চে ছিলেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ নিযাম উল আযিম, প্যানেল মেয়র-২ আব্দুল মমিন, প্যানেল মেয়র-৩ তাহেরা খাতুম মিলি প্রমুখ। এ সময় ইনস্টিটিউটের কো-অর্ডিনেটর প্রফেসর মুহা. হবিবুর রহমান, কবি আরিফুল হক কুমার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে গত ১ জানুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে আরসিসি এমপ্লয়মেন্ট স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউটে যাত্রা শুরু হয়। এই ইনস্টিটিউটে চারটি কোর্সে শিক্ষার্থীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। কোর্সসমূহ হচ্ছে, ডিজিটাল মার্কেটিং ফর ফ্রিল্যান্সিং, গ্রাফিক্স ডিজাইন ফর ফ্রিল্যান্সিং, ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট ফর ফ্রিল্যান্সিং, ভিডিও এডিটিং ফর ফ্রিল্যান্সিং। চার মাসব্যাপী প্রশিক্ষণে প্রথম ব্যাচে চারটি কোর্সে ২৪০ জন শিক্ষার্থী প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন।