সর্বশেষ ::

রাজশাহীর তাপমাত্রা ৯.৫, বন্ধ স্কুল

  • আপডেট সময় : ০১:৩১:১৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২৪ ৩ বার পড়া হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার: চলতি শীত মৌসুমে রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। রোববার ভোর ৬টার দিকে রাজশাহীতে এই তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। তাপমাত্রা আট থেকে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ভেতর থাকলে তাকে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ ধরা হয়। আগের দিন শনিবার থেকেই উত্তরের এই জেলায় মৃদু শৈত্যপ্রবাহ চলছে। এ অবস্থায় বন্ধ রয়েছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।
এর আগে গত ১৩ জানুয়ারি সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল ৯ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এরপর তাপমাত্রা কিছুটা বাড়লেও শনিবার ভোরে তা ৯ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে যায়। এ দিন দুপুরে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ২১ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।
রাজশাহী আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের উচ্চ পর্যবেক্ষক লতিফা হেলেন জানান, রোববার ভোরে রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। এটিই চলতি মৌসুমে রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। ভোর থেকে ঘন কুয়াশা ছিল। তবে সকাল ১০টার পর সূর্যের মুখ দেখা গেছে।
এদিকে তীব্র শীতের কারণে রাজশাহীর মাধ্যমিক বিদ্যালয়গুলো দুইদিন বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোও একদিন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে। রোববারের আবহাওয়ার পূর্বাভাস দেখে শনিবার সন্ধ্যায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কোন জেলায় তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নামলেই স্কুলগুলো বন্ধ রাখার জন্য সরকারি নির্দেশনা রয়েছে। সে অনুযায়ী রাজশাহীর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়েছে।
শনিবার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষার (মাউশি) রাজশাহী অঞ্চলের উপপরিচালক ড. শরমিন ফেরদৌস চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে বলা হয়, আবহাওয়া অধিদপ্তরের পূর্বাভাস অনুযায়ী রোববার ও সোমবার (২১ ও ২২ জানুয়ারি) রাজশাহীর তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে থাকবে। তাই মাউশির নির্দেশনা অনুযায়ী এ দুই দিন মাধ্যমিক বিদ্যালয়গুলো বন্ধ থাকবে।
এদিকে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সাইদুল ইসলাম জানিয়েছেন, তারা শুধু রোববার প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। রোববার আবার আবহাওয়ার পূর্বাভাস জেনে সোমবারের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। যদি দেখা যায় সোমবারও তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে থাকবে, তাহলে সেদিনও জেলার সকল প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ রাখা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

রাজশাহীর তাপমাত্রা ৯.৫, বন্ধ স্কুল

আপডেট সময় : ০১:৩১:১৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২৪

স্টাফ রিপোর্টার: চলতি শীত মৌসুমে রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। রোববার ভোর ৬টার দিকে রাজশাহীতে এই তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। তাপমাত্রা আট থেকে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ভেতর থাকলে তাকে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ ধরা হয়। আগের দিন শনিবার থেকেই উত্তরের এই জেলায় মৃদু শৈত্যপ্রবাহ চলছে। এ অবস্থায় বন্ধ রয়েছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।
এর আগে গত ১৩ জানুয়ারি সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল ৯ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এরপর তাপমাত্রা কিছুটা বাড়লেও শনিবার ভোরে তা ৯ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে যায়। এ দিন দুপুরে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ২১ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।
রাজশাহী আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের উচ্চ পর্যবেক্ষক লতিফা হেলেন জানান, রোববার ভোরে রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। এটিই চলতি মৌসুমে রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। ভোর থেকে ঘন কুয়াশা ছিল। তবে সকাল ১০টার পর সূর্যের মুখ দেখা গেছে।
এদিকে তীব্র শীতের কারণে রাজশাহীর মাধ্যমিক বিদ্যালয়গুলো দুইদিন বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোও একদিন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে। রোববারের আবহাওয়ার পূর্বাভাস দেখে শনিবার সন্ধ্যায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কোন জেলায় তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নামলেই স্কুলগুলো বন্ধ রাখার জন্য সরকারি নির্দেশনা রয়েছে। সে অনুযায়ী রাজশাহীর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়েছে।
শনিবার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষার (মাউশি) রাজশাহী অঞ্চলের উপপরিচালক ড. শরমিন ফেরদৌস চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে বলা হয়, আবহাওয়া অধিদপ্তরের পূর্বাভাস অনুযায়ী রোববার ও সোমবার (২১ ও ২২ জানুয়ারি) রাজশাহীর তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে থাকবে। তাই মাউশির নির্দেশনা অনুযায়ী এ দুই দিন মাধ্যমিক বিদ্যালয়গুলো বন্ধ থাকবে।
এদিকে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সাইদুল ইসলাম জানিয়েছেন, তারা শুধু রোববার প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। রোববার আবার আবহাওয়ার পূর্বাভাস জেনে সোমবারের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। যদি দেখা যায় সোমবারও তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে থাকবে, তাহলে সেদিনও জেলার সকল প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ রাখা হবে।