বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক উৎসবের ৪র্থ দিনে পঞ্চকবির গান

52

স্টাফ রিপোর্টার : আকর্ষণীয় সুর, শিল্পীর দরদী কণ্ঠ ও বাদ্যযন্ত্রের সংমিশ্রণে পঞ্চকবি’র গানের মধ্যেদিয়ে গতকাল বিকালে সূচনা হয় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সাংস্কৃতিক উৎসবের ৪র্থ দিনের আয়োজন। বাংলার পাঁচ কালজয়ী কবির কিংবদন্তী গানে নগর ভবনের গ্রিনপ্লাজায় তৈরি হয় এক আবেগঘন পরিবেশ। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গীত বিভাগ রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, দ্বিজেন্দ্রলাল রায়, রজনীকান্ত সেন, অতুল প্রসাদ সেন এবং কাজী নজরুল ইসলাম এই পাঁচকবির জন্মকালের ধারাবাহিকতা অনুযায়ী পঞ্চকবিকে উপস্থাপন করা হয়। এরপর বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিচারণ করে বক্তৃতা দেন, ঢাকা বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ডা. মাহমুদ হাসান। কবি মোহাম্মাদ কমাল, শফিকুল আলম শফিক, আলমগীর মালেক, সিরাজুদ্দৌলা বাহার, আনিফ রুবেদ, সমতোষ রায় এবং মাহবুব অনিন্দ্য আবৃত্তি করেন স্বরচিত কবিতা। সান্ধ্যপ্রদীপ সাংস্কৃতিক অ্যাকাডেমি উপস্থাপন করে রাজশাহী অঞ্চলের প্রচলিত ও জনপ্রিয় লোকগীতি গম্ভীরা। কার্তিক বাউল ও তার দলের পরিবেশিত লোকগীতি’র মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠানের চতুর্থ দিনের সমাপ্তি ঘটে। এর আগে সকালে ১০ টায় অনুষ্ঠিত হয় কবিতা আবৃত্তি প্রতিযোগিতা। রাজশাহীর বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ৮০ জন শিক্ষার্থী এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে।
আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর দেড়টা পর্যন্ত থাকছে অভিনয় প্রতিযোগিতা এবং বিকাল পাঁচটায় থাকছে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

SHARE