দেশের উন্নয়নে নৌকার বিজয় ঘটাতে হবে : এনামুল

169

জিল্লুর রহমান : রাজশাহী-৪(বাগমারা) আসনের সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক বলেছেন, দেশের উন্নয়ন ধারা অব্যাহত রাখতে নৌকার বিজয় ঘটাতে হবে। নৌকা ছাড়া দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয়। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উন্নয়নের নিবর্বাচন। নৌকার বিজয় হলে দেশের মানুষের বিজয় হয়। দেশের আপামর জনগোষ্ঠির ভাগ্যের উন্নয়ন হয়। ১০ বছরে দেশের জনগণ বুঝে গেছে আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়নমূখী ভূমিকার কারণে কি পরিমান উন্নয়ন হয়েছে। বুধবার বিকেলে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর কমপ্লেক্সের দলীয় কার্যালয়ে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে উপজেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

দলীয় নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্যে তিনি আরো বলেছেন, কোন প্রলভোনে যেন দলীয় কোন নেতৃবৃন্দ নৌকা বিরোধী চক্রের হাতে বন্দি না হয়। দেশের উন্নয়ন কেবল শেখ হাসিনার দ্বারাই সম্ভব। বাগমারার ভবিষ্যৎ উন্নয়নের নানা পরিকল্পনা এরই মধ্যে হাতে নেয়া হয়েছে। উন্নত বাগমারা গড়তে হলে নৌকার বিজয়ের বিকল্প নেই। নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে। নৌকার বিজয় ছাড়া এলাকার উন্নয়ন সম্ভব না। তাই সকলকে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে এখন থেকেই নিষ্ঠার সাথে কাজ করতে হবে। বাগমারার আপামর জনগোষ্ঠির উন্নয়নে আগামী ৩০ ডিসেম্বর নৌকায় ভোট দেয়ার আহ্বান জানান তিনি।

উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ গোলাম সারওয়ার আবুলের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অনিল কুমার সরকার, জেরা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক আব্দুস সামাদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি মতিউর রহমান টুকু, ভবানীগঞ্জ পৌর সভার মেয়র আব্দুল মালেক মন্ডল, সোনাডাঙ্গা ইউনিয়নেরে চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ আজাহারুল হক, আউচপাড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সরদার জান মোহাম্মদ, নরদাশ ইউনিয়নের সভাপতি আব্দুর রশিদ, উপজেলা মহিলা লীগের সভাপতি মরিয়ম বেগম, যুবলীগের সভাপতি আল মামুন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা আওয়ামী লীগের কৃষি বিষয়ক সম্পাদক কুমার প্রতীক দাশ রানা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আহসান হাবিব, রিয়াজ উদ্দিন মাস্টার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সিরাজ উদ্দিন সুরুজ, সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক ইসমাইল হোসেন বেঙ্গল, সহ-দপ্তর সম্পাদক নুরুল ইসলাম, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, শ্রম সম্পাদক মকবুল হোসেন, সহ-প্রচার সম্পাদক ফরহাদ হোসেন মজনু, কোষাধ্যক্ষ জাহাঙ্গীর আলম হেলাল, শিক্ষা ও মানব সম্পাদ বিষয়ক সম্পাদক মোল্লাহ এম আলতাফ হোসেন, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক হারুন অর রশিদ, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক নাসির উদ্দীন, মহিলা বিষয়ক সম্পাদীকা মাহফুজা পারভীন সীমা, কার্যকরী কমিটির সদস্য আলী হাসান, লুৎফর রহমান, জাহাঙ্গীর আলম, আবুল কালাম আজাদ, শামসুল ইসলাম, হাতেম আলী, হাচেন আলী, বকুল খরাদী, আব্দুল বারী, ওমর আলী, আয়ুব আলী, লোকমান আলী, চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন, আসলাম আলী আসকান, জেলা পরিষদ সদস্য মাহমুদুর রহরমান রেজা, নারগীস বেগম, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য জাহানারা বেগম, আওয়ামী লীগ নেতা আজাহার আলী, আব্দুর রাজ্জাক, মশিউর রহমান, আব্দুস সাত্তার, মানিক হোসেনে, জেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সেজানুর রহমান সেজান, উপজেলা যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক শামীম মীর, সাংগঠনিক সম্পাদক মাজেদুল হক সোহাগ, যুবলীগ নেতা সানোয়ার হোসেন, মাহাবুর রহমান মিঠু, মাসুদ রানা, উপজেলা মহিলালণীগের সাধারণ সম্পাদক কহিনুর বেগম, উপজেলা যুবমহিলা লীগের সভাপতি শাহীনুর খাতুন, সাধারণ সম্পাদক পারভীন বেগম, উপাজেলা কৃষকলীগের সভাপতি এমদাদুল হক, সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জহুরুল ইসলাম, ছাত্রলীগ নেতা আশিকুর রহমান সজল, আবুল কালাম আজাদ, নাদিরুজ্জামান মিলন প্রমুখ।

এসময় উপজেলার সকল ভোট কেন্দ্রের আহ্বায়ক, যুগ্ম আহ্বায়ক সহ আওয়ামী লীগের ও অংগ সহযোগি সংগঠনের সদস্যবৃন্দ।

SHARE