নগরীতে প্রতিপক্ষকে অস্ত্র দিয়ে ফাঁসাতে গিয়ে ধরা খেলেন তিন যুবক

45

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহী মহানগরীতে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে গিয়ে মহানগর গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশের হাতে বিদেশী কাটা বন্দুকসহ তিনজন আটক হয়েছে। আটককৃতরা হলেন, বোয়ালিয়া পাড়া এলাকার মাছ ব্যবসায়ী মৃত হায়দার আলীর ছেলে মাসুম (৪০),অলোকার মোড় এলাকার শ্রী রতন সরকারের ছেলে শ্রী প্রতাব সরকার (৪২) ও শাহেব বাজার মাষ্টারপাড়া এলাকার মামুনের ছেলে শহিদুল হাসান রনি (৩৫) । আটকদের বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা দেওয়া হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে রাজশাহী মহানগড় গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) উপ কমিশনার (ডিসি) আবু আহাম্মদ আল মামুন।

জানা যায়, গত ১৮ই সেপ্টেম্বর শুক্রবার সন্ধার সময় বোয়ালিয়া মডেল থানাধীন বোয়ালিয়া পাড়া এলাকার গোলাম আজম হোসেন বাবুর বাড়ীর ছাদের উপর পরিত্যক্ত অবস্থায় বিদেশী কাটা বন্দুকটি জব্দ করেন মহানগর গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশ। পরে বিষয়টি সন্দেহজনক হওয়ায় রাজশাহী মহানগর গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) উপ কমিশনার (ডিসি) আবু আহাম্মদ আল মামুন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং বিষয়টি নিয়ে জোর তদন্ত ও অভিযান পরিচালনা করার নির্দেশনা দিলে ডিবি পুলিশের এস আই সালাম ও এস আই আমিনুলসহ সঙ্গীয় ফোর্স অভিযান পরিচালনা করে শ্রী প্রতাব সরকার ও শহিদুল হাসান রনিকে আটক করে। পরে তাদের দেয়া তথ্য মতে অভিযান পরিচালনা করে বোয়ালিয়া পাড়া এলাকার মাছ ব্যবসায়ী মৃত হায়দার আলীর ছেলে মাসুমকেউ আটক করে মহানগর ডিবি পুলিশ। আটক দুজনে নিজেদের সংশ্লিষ্টতা ও মৃত হায়দার আলীর ছেলে মাসুম এর প্ররোচনায় অর্থনৈতিকভাবে লাভবান হতে একাজ করেছে বলে স্বীকার করে।

তারা বলেন, বোয়ালিয়া পাড়া এলাকার মৃত হায়দার আলীর ছেলে মাসুমের সাথে গোলাম আজম হোসেন বাবুর সীমানা বিরোধ চলছিলো। গত শুক্রবার সন্ধা ১৯.৩০ ঘটিকার সময় শ্রী প্রতাব সরকার ও মাসুমের সাথে পরামর্শ করে শহিদুল হাসান রনির মাধ্যমে প্রতাবের বাড়ীতে রক্ষিত অবৈধ অস্ত্রটি এনে মাসুমের বাড়ীতে যায়। জনৈক গোলাম আজম হোসেন বাবুর সাথে মাসুমের জমি জমার বিরোধ থাকায় তার বাড়ীতে অস্ত্র রেখে তাকে পুলিশ দিয়ে ধরিয়ে দিয়ে হেনস্থা করার কু-মানষে সুযোগ মত জনৈক গোলাম আজম হোসেন বাবুর বাড়ীর ছাদের কার্নিসের উপর একটি প্লাস্টিকের বাজার করা ব্যাগের মধ্যে বর্ণিত কাটা বন্দুকটি রেখে আসে এবং ডিবি পুলিশকে খবর দেয় তারা।

SHARE