বাঘায় ইমাম নিয়োগ নিয়ে সংঘর্ষ, গুলিতে আহত ৬

36

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহীর বাঘা উপজেলায় একটি মসজিদের ইমাম নিয়োগকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় একপক্ষ গুলি ছুঁড়েছে। সংঘর্ষে অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে অন্তত ছয়জন আহত হয়েছেন গুলিতে।
সংঘর্ষ -ফাইল ছবি

বুধবার (২৭ মে) দুপুর ১২টার দিকে বাঘার পদ্মার চরের নওশারা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এলাকাটি রাজশাহীর বাঘা, নাটোরের লালপুর এবং কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার সীমান্ত এলাকা। নওশারা জামে মসজিদের বর্তমান ইমামকে রাখা না রাখা নিয়ে সংঘর্ষ। এই মসজিদটি লালপুর সীমানার মধ্যে পড়েছে।

বাঘা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বলেন, এলাকার একপক্ষ বলছিল নওশারা জামে মসজিদের বর্তমান ইমামের নামাজ পড়ানো ভালো নয়, তাকে বাদ দিয়ে অন্য ইমাম নিয়োগ দিতে হবে। তারা লালপুরের এক ব্যক্তিকে ইমাম হিসেবে নিয়োগ দিতে চান। অন্যপক্ষ বর্তমান ইমামকেই রাখতে চান।

এ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। এতে একপক্ষ অন্যপক্ষকে এয়ারগান দিয়ে গুলি করেছে। পাঁচজনের হাতে, বুকে, পিঠে, নাকে গুলি লেগেছে। তবে স্থানীয়রা বলছেন, গুলিতে আহত হয়েছেন ছয়জন। এছাড়া লাঠিশোটার আঘাতে দুই পক্ষের আরও অন্তত চারজন আহত হয়েছেন।

ওসি জানান, আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়েছে। কারও অবস্থা আশঙ্কাজনক নয়। ঘটনাস্থল থেকে দুইজনকে আটক করা হয়েছে। এয়ারগান উদ্ধারে তল্লাশি চলছে। এ নিয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

SHARE